BangaliNews24.com

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার পৌরসভা নির্বাচনে একই পদে বাবা-ছেলের লড়াই

নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার পৌরসভা নির্বাচনে একই পদে বাবা-ছেলের লড়াই
জুলাই ০২
০১:৫০ ২০১৮

নারায়ণগঞ্জ থেকে : লাল মিয়া, তার বড় ছেলে মো. নবী হোসেন ও তার উকিল শ্বশুর বর্তমান কাউন্সিলর মো. বশির উল্লাহ নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার পৌরসভা নির্বাচনে সাধারণ ওয়ার্ডে কাউন্সিলর পদে বাবা-ছেলে ও উকিল শ্বশুরের নির্বাচনী লড়াই জমে উঠেছে। নির্বাচনী মাঠে কেউ কাউকে ছাড় না দিয়ে বিরামহীন প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন। এ নিয়ে এলাকায় হাস্যরসের সৃষ্টি হয়েছে ভোটারদের মাঝে। তবে জয়ের ব্যাপারে আশাবাদী তিন প্রার্থীই।

আড়াইহাজার পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডে সাধারণ কাউন্সিলর পদে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন আড়াইহাজার ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক মেম্বার মুক্তিযোদ্ধা মো. লাল মিয়া, তার বড় ছেলে মো. নবী হোসেন ও নবী হোসেনের উকিল শ্বশুর বর্তমান কাউন্সিলর মো. বশির উল্লাহ । তিনজন একে অপরের নিকট আত্মীয় হলেও ভোটের মাঠে কেউ কাউকে ছাড় দিচ্ছেন না। এ নিয়ে নির্বাচনী এলাকায় সাধারণ ভোটারদের মধ্যে ব্যাপক আলোচনা চলছে।

পাড়া-মহল্লা, বাজার-বন্দর ও চায়ের দোকানগুলোতে সরব আলোচনা হচ্ছে তাদের নিয়ে। তিন প্রার্থী সকাল থেকে রাত পর্যন্ত বিরামহীন প্রচারণা চালাচ্ছেন। ভোটাদের বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট প্রার্থনা করছেন এবং নিজের গ্রহণযোগ্যতার বিষয়টি তুলে এলাকার উন্নয়নে নানা প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন।

এ ব্যাপারে কাউন্সিলর প্রার্থী লাল মিয়া জানান, বিগত দিনগুলোতে এলাকার মানুষের পাশে থেকে সেবা করার কারণে জনগণ তার পক্ষে ব্যাপক সাড়া দিচ্ছেন। নির্বাচনে তিনি বিপুল ভোটে জয়ী হবেন বলে তার বিশ্বাস। অপরদিকে বর্তমান কাউন্সিলর ও নির্বাচনে প্রার্থী মো. বশির উল্লাহ জানান, বিগত পৌরসভা নির্বাচনেও তার বিয়াই লাল মিয়ার সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে বিপুল ভোটে তিনি জয়লাভ করেন। তিনি বলেন, বিগত দিনগুলোতে এলাকার মানুষের পাশে থেকে সেবা করেছি। সাধারণ ভোটারদের দাবিতে আবারও তিনি কাউন্সিলর প্রার্থী হয়েছেন। তার বিশ্বাস ভোটাররা এবারও তাকে বিপুল ভোটে নির্বাচিত করবেন।

এদিকে বাবা ও উকিল শ্বশুরের বিরুদ্ধে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নেমেছেন নবী হোসেন। তিনি জানান, তিনি তার বাবা লাল মিয়া ও শ্বশুর বশির উল্লাহকে নিয়ে সমঝোতার চেষ্টা করেন একক প্রার্থী করার জন্য। কিন্তু পারিবারিকভাবে কয়েকবার সমঝোতা বৈঠকের পরও বাবা ও উকিল শ্বশুরকে সমঝোতায় নিয়ে আসতে না পারায় তাদের উপর রাগ করে নিজেই তাদের বিরুদ্ধে নির্বাচনী প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নেমেছেন।

নবী হোসেন বলেন, এলাকার মানুষ তরুণ হিসেবে আমাকে বেছে নেবে। । আগামী ২৫ জুলাই আড়াইহাজার ও গোপালদী পৌরসভায় ভোটগ্রহণ অনুষ্টিত হবে।

অন্যান্য খবর

BangaliNews24.com