BangaliNews24.com

কক্সবাজার সৈকতের স্থাপনা উচ্ছেদের নির্দেশ

কক্সবাজার সৈকতের স্থাপনা উচ্ছেদের নির্দেশ
এপ্রিল ২০
২০:২৯ ২০২২


সর্বোচ্চ দীর্ঘতম অখন্ডিত সমুদ্র সৈকত কক্সবাজারের ঝিলনজা, সুগন্ধা ও লাবণী পয়েন্ট সমুদ্র সৈকতের অবস্থান স্থাপনা উচ্ছেদের বিষয়ে কোর্ট দেওয়া এর বিপরীতে আর কোন ফলাফল উল্টা না। জেলা প্রশাসক এই উচ্ছেদ কঠোর আদেশ পালন করবেন।

মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) হাইকোর্টের মো. আশফাকুল ইসলাম ও প্রভাবশালী মহি শামীমের সিদ্ধান্তে গঠিত বেঞ্চ এই আদেশ দেন।

উল্লেখ্য যে, ২০১১ সালের ৭ জুন মানবজাতি ও পরিবেশবাদী রাষ্ট্র হিউম্যান রাইটস অ্যান্ড পিস ফর পরিস্থিতি (এইচআরপি) করা রিটা পরিপ্রেক্ষিতে সমুদ্র সৈকতের স্থাপনা বন্ধ ও স্থাপনা উচ্ছেদের আদেশ দেন। সঙ্গে সঙ্গেরুল জারি করেন।

এর আগে গত ১৪ পার্টি কক্সবাজারে সমুদ্রতীর এলাকায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের প্রকল্প নির্মাণ বন্ধ রাখতে প্রকৌশলী তানভির সাইদ আহেমেদকে লিগ্যাল (আইনি) নোটিশ করা হয়।


নোটিশে বলা হয়, ১৯৯৯ সালে কক্সবাজার-টেকনাফ সৈকত এলাকা ঝিলজাকে পরিবেশগত পরিস্থিতি সম্পন্ন এলাকা পরবর্তী জেট প্রকাশ করা হয়। হোটেল-মোটেল জোন জায়গা কিছু স্থাপনা অপসারণ নির্দেশনা হোটেল ব্যাখ্যারা রিট করে তা খারিজ হয়। একই সঙ্গে পাবলিক ট্রাস্ট এক্সপ্রেস করে সমুদ্র সৈকত তার নির্দেশনা দেয় হাইকোর্ট। পরবর্তী আপিল হলে তাও খারিজ হয়।
-বি





Source by [author_name]

অন্যান্য খবর


BangaliNews24.com